ব্যাংকের তহবিল সংগ্রহকারী কার্যাবলী [ Functions as Collector of Bank Funds ]

ব্যাংকের তহবিল সংগ্রহকারী কার্যাবলীঃ ব্যাংক সাধারণত তিনটি মুখ্য উৎস থেকে তহবিল সংগ্রহ করে থাকে। যথা- আমানত সংগ্রহ ধারের মাধ্যমে তহবিল সংগ্রহ পুঁজি সংস্থান। তহবিল ব্যাংকের কাছে রাখার মেয়াদ , সুবিধা ও সংগ্রহ খরচ-ই উৎস সমূহের তারতম্যের ভিত্তি।

ব্যাংকের তহবিল সংগ্রহকারী কার্যাবলী [ Functions as Collector of Bank Funds ]

ব্যাংকের তহবিল সংগ্রহকারী কার্যাবলী [ Functions as Collector of Bank Funds ]

ব্যাংক ভাণ্ডারে প্রতিনিয়ত নব নব তহবিলের আগমন ও নির্গমন ঘটে। ব্যাংক নতুন আমানত আমান বৃদ্ধি নতুন হিসাব বৃদ্ধির মাধ্যমেও অর্থের সংস্থান করে আয়ের উদ্দেশ্যে তা বিনিয়োগ করে থাকে । অন্যধায় ব্যাংকের আমানতকারীগন যদি তাদের আমানতকৃত অর্থ অধিকতর পরিমানে উত্তোলন করে ফেলে, সেক্ষেত্রে ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষকে প্রয়োজনীয় অর্থের ঘাটতি পূরণ করতে হয়। এক্ষেত্রে যদি নগদ অর্থ অতিরিক থেকে থাকে তাহলে ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষের দ্বারা অপ্রত্যাশিত উত্তোলিত টাকার সংগে সমন্বয় করা সম্ভব। যি অতিরিক্ত নগদ তহবিল না থাকে সেক্ষেত্রে অন্য তরল সম্পদ থেকে অর্থ সংস্থান অথবা অন্য উৎস থেকে তহবিল ধার করার মাধ্যমে অর্থের সংস্থান করা সম্ভব। ব্যাংক কর্তৃপক্ষকে অহরহ পরিবর্তনশীল বি আগমন ও নির্গমন এমন সতর্কতার সাথে ব্যবস্থা করতে হবে যেন এ প্রক্রিয়ার মাধ্যমে ব্যাংক মালিকদের মুনাফা সর্বাধিকরণ (Profit maximization) হয় এবং ঝুঁকি সম্ভাব্য নিম্ন পর্যায়ে হ্রাস পায়। তহবি ব্যবস্থাপনা কালে উদ্ভুত পরিস্থিতি আয়ত্তে রাখার মানসে প্রায়শঃ ব্যাংক ব্যবস্থাপকদের নমনীয় দৃষ্টিভঙ্গি রেখে তহবিল আগমন নির্গমনের দৈনন্দিন। স্বল্পকালীন বা দীর্ঘকালীন পরিকল্পনা প্রনয়ন করতে হয়। নিম্নে ব্যাংকের তহবিল সংগ্রহের কার্যাবলীর প্রধান কয়েকটির সংক্ষিপ্ত আলোচনা করা গেলঃ

ক) পুঁজি :
খ) আমানত ও
গ) ধার করা তহবিল ।

ব্যাংকের তহবিল সংগ্রহকারী কার্যাবলী [ Functions as Collector of Bank Funds ]

ক) পুঁজি [ Capital ]

ব্যাংক তহবিলের প্রথম উপাদান হলো পুঁজি। ব্যাংক সাধারণত ঋণ পত্রের মাধ্যমে দীর্ঘমেয়াদী পুঁজির সংস্থান করে এবং শেয়ার ছাড়ার মাধ্যমেও অতিরিক্ত পুঁজি সংগ্রহের ব্যবস্থা করে থাকে। সাধারণ শেয়ার ইস্যুর মাধ্যমেই ব্যাংক পুঁজি সংগ্রহ করে। উল্লেখ্য যে শেয়ার হোল্ডারগণ অধিক শেয়ার ক্রয়ের অঙ্গীকার করলে অধিক মূলধনের সন্নিবেশ ঘটে। এছাড়াও, আবণ্টিত মুনাফা ও ব্যাংকের অপ্রয়োজনীয় সম্পদ বিক্রয়ের মাধ্যমে পুঁজি বৃদ্ধি করা সম্ভব। এক্ষেত্রে আবণ্টিত মুনাফার বিষয়টি নির্ভর করে ব্যাংকের লভ্যাংশ প্রদান কৌশলের উপর।

বড় বড় ব্যাংক সমূহের অর্জিত সুনাম মাধ্যমিক পুঁজি বাজার থেকে সময় সময় তহবিল উত্তোলনে সহায়তা করে থাকে। কিন্তু ছোট ব্যাংকগুলো এরূপ সুবিধা হতে বঞ্চিত। আবার যে সব দেশে পুঁজি বাজার অনুন্নত সেখানে ব্যাংক বড় হলেও মাধ্যমিক পুঁজি বাজার থেকে পুঁজি সংগ্রহের তেমন একটি অবকাশ থাকে না।
অনেক খাতে বিশেষজ্ঞের মতে ব্যাংকের গৃহীত ব্যাংে করে থাকে। তবে এখন নীর পরেই দ্বিতীয় স্তরের বলে গণ্য করা হয়ে থাকে। আর ডি ওয়াটসন ( R.D. Wation) নামে একজন ব্যাংক বিশেষজ্ঞের মতে শহরের অধিক দীর্ঘ মারি মত ধরা যেতে পারে। দেখা গেছে ক্ষণ পরের (Debenture) মাধ্যমে অনেক সময় ব্যাংক সহ অনেক ব্যবসাান করে থাকে। এরূপ (Debenture ২৫ থেকে ৩০ বছর মেয়াদের হয়ে থাকে।

খ) আমানত [ Deposit ]

ব্যাংক তহবিলের সবচেয়ে বড় অংকের বা Deposit সাধারণত অনুমান করা হয় যে একটি মধ্যম পর্যায়ের ব্যাংকের শতকরা ৮৫ থেকে ৯৫ ভাগ তহবিল ব্যাংক আমানত সংগ্রহের মাধ্যমে সৃষ্টি হয়। মূলত আমানতকে তিনভাবে ভাগ করা যায়। (ক) চলতি আমানত হিসাব (খ) সফরী আমানত হিসাব (গ) মোদী আমানত হিসাব। তহবিল ব্যবস্থাপনার দৃষ্টিকোন থেকে মেয়াদী হিসাবের মাধ্যমে সংগৃহীত তহবিলের সংগ্রহ যায় সবচেয়ে বেশী। কিন্তু এ হিসাবে সংগৃহীত তহবিল বিনিয়োগ করে অপেক্ষাকৃত বেশী আয় করার সম্ভব। অপর পক্ষে চলতি হিসাবে সংগৃহীত আমানতের সংগ্রহ বা শুনা। এই হিসাবে সংগৃহীত ছবি আকারে বড় হলেও সাবধানতা অবলম্বন করে অতি স্বল্প সময়ের জন্য বিনিয়োগ করা সম্ভব। এতে ব্যাংকের লাভের সম্ভাবনা থেকে প্রাপ্য লাভের চেয়ে অনেক কম হয়। অপরপক্ষে, সঞ্চরী হিসাবে সংগৃহীত আমানতে পূর্ববর্তী দু’ধরণের আমানতের বৈশিষ্ট্যই বিদ্যমান। অর্থাৎ সঞ্চয়ী আমানতের চলতি চাহিদা মেয়াদী চাহিদা কারের বৈশিষ্ট্যই থাকে। সুতরাং এরূপ আমানত থেকে গন্ধ বিল ব্যবহার করে ব্যাংক বিল থেকে বেশী এবং মেয়াদী আমানতি ত থেকে কম লাভ অর্জন করে থাকে।

ব্যাংকের তহবিল সংগ্রহকারী কার্যাবলী [ Functions as Collector of Bank Funds ]

গ) ধার করা তহবিল [ Borrowed fund ]

মেধার গ্রহণ করেও ব্যাংক তহবিল সংগ্রহ করে থাকে। প্রচলিত বিধি বিধান মেনে দীর্ঘ মেয়াদী বার গ্রহণের মাধ্যমে অপেক্ষাকৃত দীর্ঘ মেয়াদের তহবিল সংগ্রহ করা সম্ভব। মেয়াদী ধারের মাধ্যমে সংগৃহীত হবার ব্যাংক পুঁজির মতই ব্যবহার হয়ে থাকে।

যে সকল তন পত্রের মাধ্যমে সাধারণত মেয়াদী বিল সংগ্রহ করা হয়ে থাকে সেগুলো হলোঃ গুনাক্রয়ের অঙ্গীকারে ঋণপত্র বিক্রয় কেন্দ্রীয় ব্যাংক থেকে সংগৃহীত ঋণ, সমজাতীয় ব্যাংক থেকে সংগৃহীত ইত্যাদি। এ থেকে এমনকি ২/১ দিনেরত হতে পারে। এধরণের তহবিলের গুদের সুর চাহিদা ও সরবরাহ পরিস্থিতির উপর নির্ভর করে। অনেক ব্যাংকই বিশ্বস্ততার সহিত নিয়মিত পরিশোধ করে পুনঃ যার গ্রহণ করে বলে আপাত স্বল্পমেয়াদী হলেও দক্ষ ও বিশ্বস্ত ব্যবস্থাপনার ফলে স্বল্প মেয়াদী উৎস থেকে লাভ করা সম্ভব।

আরও পড়ুনঃ

মন্তব্য করুন